প্রধান সূচি

মংলার হাড়বাড়িয়ায় কয়লা বোঝাই কার্গো জাহাজ ডুবি

Sinking-ship-in-the-Mongla

মংলার সুন্দরবনের হাড়বাড়িয়া এলাকায় কয়লা বোঝাই একটি কার্গো জাহাজ ডুবে গেছে। মালিকপক্ষ ডুবন্ত জাহাজটি মার্কিং ও উদ্ধারের জন্য তৎপরতা শুরু করেছে।

ডুবে যাওয়া কার্গো জাহাজের ড্রাইভার মো: আমির হোসেন জানান, মংলা বন্দরের পশুর চ্যানেলের হাড়বাড়িয়া-০৬ নম্বর এ্যাংকোরেজে থাকা একটি বিদেশী জাহাজ থেকে প্রায় ৭শ ৭৫ মেট্টিক টন কয়লা বোঝাই করে এম,ভি বিলাস নামক কার্গো জাহাজটি শনিবার দুপুর ২টার চ্যানেলের কূলের/তীরের কাছাকাছি গিয়ে অবস্থান নেয়। এরপর রবিবার গভীর রাতে (৩টা) ভাটার সময় জাহাজটি চরে আটকে কাত হয়ে গিয়ে ডুবে যায়। ভাটার সময় জাহাজটির মাষ্টার ব্রিজের আশিংক দেখা গেলেও জোয়ারের সময় জাহাজটি পুরোপুরি তলিয়ে থাকছে। কয়লা নিয়ে জাহাজটি ঢাকার মিরপুরের উদ্দেশ্যে যাওয়ার কথা ছিল বলেও জানিয়েছেন কার্গো জাহাজের ড্রাইভার আমির।

এদিকে সুন্দরবনে আবারো কয়লা বোঝাই কার্গো জাহাজ ডুবির ঘটনায় উদ্বেগ জানিয়ে সেভ দ্যা সুন্দরবন ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ড. শেখ ফরিদুল ইসলাম বলেন, কয়লার জাহাজ ডুবিতে সুন্দরবনের জলজ-প্রাণীজ ও জীববৈচিত্রের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হবে। কারণ এ কয়লা সাধারণত ইটভাটাগুলোতে ব্যবহার করা হয়ে থাকে। এ কয়লায় সালফারের পরিমাণ বেশি থাকায় এটি পরিবেশকে মারাত্মকভাবে ক্ষতি করে থাকে। এছাড়া রামপাল তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র চালু হলে সুন্দরবনে এ ধরণের দুর্ঘটনা ক্রমশই বৃদ্ধি পাবে। তাই সুন্দরবনের সুরক্ষায় এখনই সরকারকে রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ অবস্থান থেকে সরে আসতে হবে।