প্রধান সূচি

সাংবাদিকদের সত্যতা যাচাইয়ের প্রশিক্ষণ দেবে গুগল

google

সাংবাদিকদের হাত দিয়ে যাতে কোনও ভুল খবর বেরিয়ে না যায় তার জন্য গুগল প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করছে। আগামী এক বছরে ইংরেজিসহ ছয়টি ভারতীয় ভাষায় সাংবাদিকদের প্রশিক্ষণ দেবে গুগল ইন্ডিয়া। প্রায় আট হাজার সাংবাদিককে এই প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে বলে মঙ্গলবার গুগলের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

ভারতের বিভিন্ন শহর থেকে ২০০ জন করে সাংবাদিক নিয়ে এই প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হবে। পাঁচ দিনের এই প্রশিক্ষণ শিবিরে সাংবাদিকরা শিখবেন নিজেদের খবর নিরাপদ কিনা। অর্থাৎ ক্রস চেকিংয়ের একটা পাঠ থাকছে এই প্রশিক্ষণে। যা খবরকে নিরাপদ রাখবে। ভুল বা ভুয়ো খবর বেরিয়ে যাবে না।

ভুয়ো খবরের শিকার হওয়া থেকে বাঁচার জন্য এবার সার্চ ইঞ্জিন গুগল এক বড় উদ্যোগ নিলো। তারা জানিয়েছে, আগামী এক বছরের মধ্যে ইংরেজি এবং অন্যান্য ছয়টি ভাষা মিলিয়ে তারা মোট আট হাজার ভারতীয় সাংবাদিকদের প্রশিক্ষণ দেবে। সেখানে তাদের এই এই ভুয়ো খবর কিভাবে চিনতে হয় সেটা শেখানো হবে। ইংরেজি এবং ছয়টি অন্য ভাষার জন্য একটি ট্রেনিং বুট ক্যাম্পে প্রশিক্ষণ দেওয়ার জন্য প্রথমে ভারতের বিভিন্ন শহরের প্রায় ২০০ জন সাংবাদিককে প্রথমে এখানে আমন্ত্রণ জানানো হবে।

এবং নেটওয়ার্ক ট্রেনিংয়ের মধ্যে কোনো কোনো সাংবাদিক দলদের বিভিন্ন পরিকল্পনায় সামিল করা হবে। এর মধ্যে কিছু কিছু ট্রেনিং দুই দিন, একদিন এবং অর্ধ-দিনের পরিকল্পনায় সাজানো হবে।

গুগল নেটওয়ার্ক সূত্রের বরাত দিয়ে ভারতীয় গণমাধ্যম জানিয়েছে, সাংবাদিকরা এই প্রশিক্ষণ নেওয়ার পর তা অন্যান্য সাংবাদিকদেরও শেখাবেন। দু’‌দিন, একদিন এবং অর্ধদিবস সেই প্রশিক্ষণ দেবেন সাংবাদিকরা। ফলে তারা কতটা শিখেছেন তাও ঝালিয়ে নেওয়া যাবে। ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, বাংলা, মারাঠী এবং কন্নড় ভাষায় প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। প্রশিক্ষণের মূল ফোকাস হবে ফ্যাক্ট চেকিং, অনলাইন ভেরিফিকেশন, এবং সাংবাদিকদের জন্য ডিজিটাল হাইজিন। এই প্রশিক্ষণ দেওযার জন্য বিশেষজ্ঞরা থাকবেন। যারা সাংবাদিকদের ফার্স্ট ড্রাফট, স্টোরিফুল, অল্ট নিউজ, বুম লাইভ, ফ্যাক্ট চেকার এবং ডাটা লিডস সম্পর্কে প্রশিক্ষণ দেবেন।

গুগল নিউজ ল্যাবের প্রধান এরিনে জায় লিউ বলেন, ‘‌ভুল তথ্যের বিরুদ্ধে লড়াই করতে সাংবাদিকদের এই প্রশিক্ষণ দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে। তার জন্য ইন্টারনিউজ, ডাটা লিডস এবং বুম লাইভের সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধা হয়েছে। আমাদের লক্ষ্য ২০০ জন প্রশিক্ষক তৈরি করা। যাঁরা আট হাজার সাংবাদিকদের প্রশিক্ষণ দেবেন।’‌ ‌‌