প্রধান সূচি

গণতন্ত্র রক্ষা করেছে পুলিশ : বরিশালে আইজিপি

igp

পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী বলেছেন, মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ পুলিশের একক সমস্যা নয়। এটি সামাজিক সমস্যা। জনগণের সহযোগীতা ছাড়া দেশ থেকে মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ নির্মুল করা সম্ভব নয়। সবাই আন্তরিক হলে জঙ্গিবাদের মতো মাদকও রুখে দেওয়া সম্ভব। নিরাপদ বাংলাদেশ উপহার দেওয়ার জন্য মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ নির্মুল করতে পারলে ২০৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ একটি উন্নত সমৃদ্ধ দেশে পরিণত করা সম্ভব।

বৃহস্পতিবার বিকেলে বরিশাল জেলা পুলিশ লাইনস মাঠে আয়োজিত এক সুধী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আইজিপি ড. জাবেদ পাটোয়ারী বলেন, কোন পুলিশ সদস্য মাদকে সম্পৃক্ত হলে তার বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। নারী, শিশু ও গরীব বান্ধব পুলিশিং গঠনের স্বপ্নের কথা বলেন তিনি।

আইজিপি আরও বলেন, ২০১৫ সালে অগ্নি সন্ত্রাস রুখে দিয়েছিলো দেশের পুলিশ বাহিনী। ওই সময় যারা দেশকে পিছনের দিকে টেনে নিয়ে যাচ্ছিলো তাদের হাত থেকে গণতন্ত্র রক্ষা করেছে পুলিশ।

বরিশাল রেঞ্জ ডিআইজি মো. শফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে সুধী সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক তালুকদার মো. ইউনুস এমপি, মাহবুব উদ্দিন আহম্মেদ বীর বিক্রম, বিভাগীয় কমিশনার মো. শহীদুজ্জামান, মেট্রোপলিন পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কমিশনার মাহফুজুর রহমান, জেলা প্রশাসক মো. হাবিবুর রহমান, বরিশালের পুলিশ সুপার মো. সাইফুল ইসলাম, বরগুনার পুলিশ সুপার বিজয় বসাক, প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি এসএম ইকবাল, মুক্তিযোদ্ধা মহিউদ্দিন মানিক বীর প্রতীক, গৌরনদীর পৌর মেয়র হারিছুর রহমান হারিছ ও উজিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান ইকবাল প্রমুখ। বরিশাল র‌্যাব-৮’র কমান্ডিং অফিসার অতিরিক্ত জিআইজি আতিকা ইসলাম অনুষ্ঠান মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন।

বরিশাল বিভাগের সবগুলো জেলা এবং উপজেলা থেকে বিভিন্ন পর্যায়ের জনপ্রতিনিধি সহ বিভিন্ন স্থরের জনগন আজকের সুধী সমাবেশে অংশগ্রহণ করেন।

আইজিপি হওয়ার পর দুই দিনের সফরে প্রথমবারের মতো দুপুরে বিমান যোগে বরিশাল আসেন ড. জাবেদ পাটোয়ারী। প্রথম দিন সুধী সমাবেশ ছাড়াও সন্ধ্যায় পুলিশ লাইনস মাঠে আয়োজন করা হয় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের। অনুষ্ঠানে কন্ঠ শিল্পী সাবিনা ইয়াসমিন, কনাসহ দেশের খ্যাতিমান শিল্পীরা গান ও নৃত্য পরিবেশন করেন।

আগামীকাল শুক্রবার দ্বিতীয় দিন সকালে পুলিশ লাইনসে ১২তলা ব্যারাক এবং ৬ তলা অস্ত্রাগার ভবন নির্মাণের ভিত্তিপ্রস্থর উদ্বোধন এবং বিকেলে পুলিশ লাইনসে পুলিশ সমাবেশ ও ক্রীড়া প্রতিযোগীতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করবেন আইজিপি। ওইদিন সন্ধ্যায় নৌ পথে ঢাকার উদ্দেশ্যে বরিশাল ত্যাগ করবেন তিনি।